কক্সবাজার,বাংলাদেশ।। ২০১৪ সালে বাংলাদেশী সীমান্তরক্ষী বাহিনী অভিযান চালিয়ে ১১৭৩ জন

এর অধিক রোহিঙ্গাকে আটক করেছে।

বিজিবি এর সুত্রমতে, জানুয়ারীতে ৩২২, ফেব্রুয়ারীতে ২৮৭ , মার্চে ২১১, এপ্রিল এ
১৯৬ এবং মে ২০ এ ১৫৭ জন রোহিঙ্গাকে গ্রেফতার করেছে। তাদের অধিকাংশই
২০১২ এর দাঙ্গার পর বাংলাদেশে এসেছে বলে জানায় বিজিবি সুত্র।
বিভিন্ন সুত্রানুযায়ী, রোহিঙ্গারা আরাকানে -ধর্ষন,হত্যা,লুট,জোরপূর্বক অপহরণ,
ও হয়রানির স্বীকার হচ্ছেন পুলিশ ,আর্মি ও মগ থেকে।
গত ১৮ মে শাহ পরীর দ্বীপ থেকে পুলিশ ২৪ জন রোহিঙ্গাকে আটক করে যখন
তারা বাংলাদেশে প্রবেশ করছিল। উক্ত দলে, ১১ জন পুরুষ, ৭ জন নারী ও
৬জন শিশু ছিল, তাদের নিজ নিজ গৃহে ফেরত পাঠানো হয়।
বাংলাদেশ সরকার বাংলাদেশ-বার্মা সীমান্তে নিরাপত্তা জোরদার করেছে,
এবং বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালাচ্ছে অবৈধ রোহিঙ্গাদের আটক এর জন্য।
ইউএনএইচসিআর এর ঢাকা প্রধান স্টিনা লিংদেল সাংবাদিকদের একটি প্রেস ব্রিফিং

এ জানান বাংলাদেশ থেকে রোহিঙ্গাদের এখনই ফেরত পাঠানো সমূচিত
নয়।
তিনি বলেন,"তাদের প্রকৃত বাসভূমির অবস্থা তেমন ভাল নয় এবং তাদের ফেরত পাঠানো

উচিত হবে না ২০১২ সাল থেকে চলে আসা সাম্প্রদায়িক দাঙ্গা বন্ধ না হলে।"